লাশ দাফনে বাধা, শাহীনের লাশ নিয়ে কবরস্থানে অসহায় ছেলের অপেক্ষা

ঢাকাই চলচ্চিত্রের এক সময়ের জনপ্রিয় অভিনেতা চিত্রনায়ক শাহিন আলম আর নেই (ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্নইলাহি রাজিউন)। সোমবার রাত ১০ টা ৫ মিনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাজধানীর আজগর আলী হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

মঙ্গলবার সকালে (৯ মার্চ) ফাহিম বলেন, আমার বাবার লাশ বনানী কবরস্থানে দাফনের জন্য নিয়ে এসেছি। এখানে আমার চাচার কবরের স্থানে বাবার মরদেহ দাফনের কথা ছিল। কিন্তু কবর কমিটি লোকেরা তাতে বাধা দেয়। তাদের বক্তব্য, মেয়রের অনুমতি নিয়ে সেখানে দাফন করতে হবে।

এ বিষয়ে দাফনে অংশ নেয়া একজন জানান, নায়ক শাহিন আলমের দাফনে এসেছি। কিন্তু এসে দেখছি এখানে একজনের কবরের ওপর আরেকজনের দাফন করতে চাইলে একটি নির্দিষ্ট সময় পার করতে হয়। সেই সময়ও পার হয়েছে কিন্তু তারা দাফন করতে দিচ্ছে না।

তিনি আরো জানান, এ বিষয়ে শাহীন আলমের ছেলে শিল্পী সমিতির একাধিক নেতার সঙ্গে যোগাযোগ করলেও তারা কোনো সহযোগিতা করেননি।

চিত্রনায়ক ওমর সানী, মিশা সওদাগর ও জায়েদের নাম উল্লেখ করে তিনি বলেন, তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করলেও তারা কোনো সহযোগিতা করেননি। এতে শাহীন আলমের ছেলে চরম অসহায়ের মতো কবরস্থানের পাশে সময় অতিবাহিত করছেন।